ঢাকা,  রোববার
১৪ এপ্রিল ২০২৪

The Daily Messenger

“যুবসমাজকে দুর্নীতি-লুটপাটের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে”: ইনু

রাজশাহী প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২২:০৫, ৪ মার্চ ২০২৪

আপডেট: ২২:৩৮, ৪ মার্চ ২০২৪

“যুবসমাজকে দুর্নীতি-লুটপাটের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে”: ইনু

ছবি: মেসেঞ্জার

রাজশাহীতে অনুষ্টিত যুবসমাজে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) সভাপতি, সাবেক তথ্যমন্ত্রী ও ১৪ দলীয় জোটের নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা হাসানুল হক ইনু বলেছেন, “দেশের যুব সমাজকে দুর্নীতি-লুটপাটের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে। দ্রব্যমূল্যের উর্ধগতিতে দুর্দশাগ্রস্থ জনগণের পাশে দাঁড়ানোর পাশাপাশি বাংলাদেশের চিরশত্রু মৌলবাদ, জঙ্গিবাদ, তালেবানী শক্তি ও তাদের পৃষ্ঠপোষক বিএনপি-জামায়াতের ক্ষমতা দখলের রাজনীতির মোকাবেলা করতে হবে।”

গতকাল সোমবার (০৪ মার্চ) বিকালে রাজশাহী মহানগরীর গণকপাড়াস্থ “জয় বাংলা চত্বরে” (বাটার মোড়) জাসদের সহযোগী যুব সংগঠন জাতীয় যুবজোটের রাজশাহী বিভাগীয় সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

হাসানুল হক ইনু আরও বলেন, “নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের অস্বাভাবিক দাম বৃদ্ধিতে জনগণ দুঃখ-কষ্টে আছে। সরকার ও প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে বাজার সিন্ডিকেট কারসাজি করেই চলেছে। কোনো অজুহাত না দেখিয়ে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণের জন্য বাজার সিন্ডিকেট ধ্বংস করার দায়িত্ব সরকারকেই নিতে হবে।”

তিনি আরও বলেন, “যারা মুক্তিযুদ্ধ করেছিলো তারা যুবকই ছিলো। সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়েও যুবকদেরই ঝান্ডা ধরতে হবে। বাঙালিদের যারা ধ্বংস করতে চায়, ধর্মের নামে যারা পাকিস্তানি ও তালেবানি সংস্কৃতি চাপিয়ে দিতে চায়, তাদের প্রতিরোধ করে বাঙালি সংস্কৃতি প্রসারে যুব সমাজকে প্রথম সারির যোদ্ধা হিসাবে অবতীর্ণ হতে হবে।”

জাতীয় যুবজোটের সাধারণ সম্পাদক ও রাজশাহী মহানগর সভাপতি শরিফুল ইসলাম সুজনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক সুমন চৌধুরীর সঞ্চালনায় সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন, জাসদের সহসভাপতি এড. মজিবুল হক বকু  এবং রাজশাহী মহানগর জাসদের সভাপতি আব্দুল্লাহ আল মাসুদ সিদ্দিকী শিবলী। প্রধান বক্তা ছিলেন জাতীয় যুবজোটের সভাপতি মো. শরিফুল কবির স্বপন।

অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি ছিলেন জাসদের কেন্দ্রীয় উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা শফিউর রহমান শফি, রাজশাহী জেলার সভাপতি প্রদীপ মৃধা, মহানগর সাধারণ সম্পাদক আমিরুল কবির বাবু ও যুবজোটের কার্যকরী সভাপতি আমিনুল আজিম বনি।

জাতীয় যুব জোট কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি শরিফুল কবির স্বপন বলেন, “যুব কর্মসংস্থানের জন্য যুবকদের প্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ সুবিধা রাখা এবং স্বল্প সুদে জামানত বিহীন ঋণ প্রদান করতে হবে। যুব সমাজ যেন চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত না হয় সে জন্য নিজেদের তৈরি করতে হবে। বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে অন্যথায় বেকার ভাতা প্রদান করতে হবে। সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩৩ বছর করতে হবে।”

তিনি বলেন, “বিএনপি-জামাত জনগণের দুঃখ-কষ্টকে পুঁজি করে ক্ষমতায় যাবার রাজনীতি করছে। বিএনপি-জামাতের কাছে সংকট সমাধানের কোনো প্রস্তাব নাই। বিএনপি আন্দোলনের নামে যা করছে তার ভিতরে গণতন্ত্রও নাই, বিএনপি-জামাত ক্ষমতা ছাড়া আর কিছুই বুঝে না।”

সভাপতির বক্তব্যে শরিফুল ইসলাম সুজন বলেন, ‘নিত্যপণ্য, পরিবহণ ভাড়া, জ্বালানি তেল, সারের দাম কমাতে হবে। যুব সমাজসহ জনগণের কোনো স্বার্থেও নাই বিএনপি। তাদের তথাকথিত আন্দোলন নিছক ক্ষমতা দখলের আন্দোলন ছাড়া আর কিছুই নয়। দুর্নীতি লুটপাট বন্ধ করতে হবে ও সুশাসন কায়েম করতে হবে।

মেসেঞ্জার/মাহবুব

dwl
×
Nagad