ঢাকা,  মঙ্গলবার
১৬ এপ্রিল ২০২৪

The Daily Messenger

চাঞ্চল্যকর লাল্টু হত্যা মামলার প্রধান আসামী গ্রেপ্তার

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৩:৩৫, ৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

চাঞ্চল্যকর লাল্টু হত্যা মামলার প্রধান আসামী গ্রেপ্তার

ছবি : মেসেঞ্জার

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় পরকীয়া প্রেমের জের ধরে চাচা লাল্টু মোল্লাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুই ভাতিজা। চাঞ্চল্যকর লাল্টু হত্যা মামলার প্রধান পলাতক আসামী ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা উপজেলার কাকুড়াডাঙ্গা গ্রামের মোঃ মিরাজ মোল্যা (২২) কে গ্রেপ্তার করেছে ঝিনাইদহ র‍্যাব-৬।

রোববার (০৪ ফেব্রুয়ারি) র‍্যাব-৬ এর কোম্পানি কমান্ডার স্কোয়াড্রন লীডার ইশতিয়াক হোসাইন তথ্যটি নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, শৈলকুপায় পরকীয়া প্রেমের জের ধরে চাচা লাল্টু মোল্লাকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। এ ঘটনার বিষয়ে র‍্যাব-৬ ক্যাম্পের একটি চৌকস আভিযানিক দল ছায়া তদন্ত শুরু করে এবং উক্ত হত্যা মামলার প্রধান আসামীকে গ্রেপ্তারের গোয়েন্দা তৎপরতা অব্যাহত রাখে।

এরই ধারাবাহিকতায় ০৪ ফেব্রুয়ারি রাতে ঝিনাইদহ র‍্যাব-৬ এর একটি আভিযানিক দল গোপন তথ্যের মাধ্যমে জানতে পারে যে, হত্যা মামলার প্রধান পলাতক আসামী মিরাজ মোল্যা কুষ্টিয়া জেলার খোকসা এলাকায় অবস্থান করছে। এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব- ৬ এর আভিযানিক দলটি কুষ্টিয়া জেলার খোকসা থানা এলাকায় একটি বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে হত্যা মামলার প্রধান পলাতক আসামী ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা উপজেলার কাকুড়াডাঙ্গা গ্রামের মিরাজ মোল্যাকে গ্রেপ্তার করে। গ্রেপ্তারকৃত আসামীকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে উক্ত হত্যাকান্ডের সাথে সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করে। গ্রেপ্তারকৃত আসামীকে শৈলকুপা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, প্রায় ১ বছর আগে ঐ উপজেলার ১২ নং নিত্যানন্দনপুর ইউনিয়নের কাকুড়াডাঙ্গা গ্রামের গ্যানো মোল্লার ছেলে ভিকটিম লাল্টু মোল্লা (৩৫) তার বড় ভাবি রিভা বেগমকে পরকীয়ার জের ধরে বাড়ি থেকে পালিয়ে বিয়ে করে। এ ঘটনায় একই গোষ্ঠীর যৌথ পরিবারের মাঝে বিরোধ শুরু হয়। ভিকটিম লাল্টু দীর্ঘদিন আত্মগোপন থেকে সম্প্রতি বাড়িতে ফিরে আসে।

গত ০১ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার দুপুরে ভিকটিম লাল্টু বাজার থেকে বাড়ি ফিরার পথে বিলের ধারে একটি মাছের খামারের কাছে পৌঁছালে আসামী আসাদ ও মিরাজ পূর্বপরিকল্পিতভাবে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে। একপর্যায়ে গুরুতর আহত অবস্থায় লাল্টু মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ বিষয়ে ভিকটিম এর মাতা গত ০১ ফেব্রুয়ারি শৈলকুপা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে।

মেসেঞ্জার/বিপাশ/ফারদিন

dwl
×
Nagad