ঢাকা,  রোববার
০৩ জুলাই ২০২২

The Daily Messenger

মাদ্রাসায় যাওয়ার কথা বলে নিখোঁজ ৪ বোন

কুমিল্লা প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৭:৪৩, ২৮ মে ২০২২

আপডেট: ১৮:০৪, ২৮ মে ২০২২

মাদ্রাসায় যাওয়ার কথা বলে নিখোঁজ ৪ বোন

কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে নানার বাড়ি থেকে মাদ্রাসায় যাওয়ার কথা বলে নানার বাড়ি থেকে বের হয়ে দুই দিনেও বাড়ি ফিরেনি চার বোন। নিখোঁজ চার বোন উপজেলার মৌকরা ইউনিয়নের কালেম গ্রামের মজিবুল হকের মেয়ে। শুক্রবার রাতে নাঙ্গলকোট থানায় লিখিত অভিযোগ করেন নিখোঁজ শিক্ষার্থীদের বাবা।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কালেম গ্রামের মজিবুল হক দীর্ঘদিন যাবত মরদেহের গোসল ও দাফন সেবা করে আসছেন। তার চার কন্যা সন্তান থাকলেও কোন ছেলে সন্তান নেই। তাদের মধ্যে তাসনিম জাহান (১৭), মারজাহান (১৪), তাজিন সুলতানা (১২) নাঙ্গলকোট উপজেলা সদরের আফসারুল উলুম কামিল মাদ্রাসার আলিম প্রথম বর্ষ, অষ্টম ও ৬ষ্ঠ শ্রেণীর শিক্ষার্থী। অপর বোন মাইশা সুলতানা (৬) নারুয়া তা’লিমুল কোরআন মডেল মাদরাসার শিশু শ্রেণির ছাত্রী।

গত বুধবার (২৫ মে) একই ইউনিয়নের নারুয়া গ্রামের নানা বাড়িতে বেড়াতে যায় চার বোন। পরদিন বৃহস্পতিবার (২৬ মে) সকাল ৯টার দিকে তারা ৪ বোন নানা বাড়ি থেকে মাদ্রাসায় যাওয়ার কথা বলে বের হয়। এরপর থেকে তারা রিপোর্টটি লিখা পর্যন্ত তারা বাড়ি ফিরেনি। গত বৃহস্পতিবার বিকাল থেকে মেয়েরা বাড়িতে না যাওয়ায় তাদের পরিবারের লোকজন সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজ করেও কোনো সন্ধান পায়নি।

এ নিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। চার মেয়েকে সন্ধান নিশ্চিতে স্থানীয় প্রশাসনসহ সকলের সহযোগিতা কামনা করেন নিখোঁজ ছাত্রীর বাবা মজিবুল হক। নাঙ্গলকোট থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ফারুক হোসেন বলেন, এ বিষয়ে অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টির তদন্ত চলছে।

ডিএম/আরএ

শীর্ষ সংবাদ: